dS9MMVpNWmVkOUJiOUNkZEoxeXE0ZlZxYzNWUi9uMUZBY0M2aHdBY3BRYz01

স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপ ২০২০ আবেদন প্রক্রিয়া

এখান থেকে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  

পশ্চিমবঙ্গ উচ্চশিক্ষা বিভাগ মেধাবী শিক্ষার্থীদের স্বামী বিবেকানন্দ বৃত্তি (Swami Vivekananda Scholarships) প্রদান করে, যারা সর্বশেষ বোর্ড পরীক্ষায় কমপক্ষে ৭৫% অর্জন করেছে। বৃত্তিটির বর্তমান নাম Swami Vivekananda Merit cum Means (SVMCM) Scholarship; পূর্বে এই বৃত্তির নাম ছিল Bikash Bhavan Scholarship। পশ্চিমবঙ্গে উচ্চমাধ্যমিক স্তর থেকে রিসার্চ স্তর পর্যন্ত সমাজে অর্থনৈতিক ভাবে পিছিয়ে থাকা মেধাবী ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য এই উল্লেখযোগ্য উদ্যোগ।

এই পোস্টের মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন স্বামী বিবেকানন্দ বৃত্তি (Swami Vivekananda Scholarships) ২০২০ স্কলারশিপ ফর্ম কিভাবে ডাউনলোড করতে হবে, কিভাবে আবেদন করতে হবে, এই স্কলারশিপ পেতে গেলে কি কি যোগ্যতা প্রয়োজন, ফর্ম ফিলাপের পদ্ধতি এবং আবেদনের শেষ তারিখ কবে বিস্তারিত খুঁটিনাটি বিষয়গুলি জানাবো।

[স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ (সংখ্যালঘু শিক্ষার্থীদের জন্য)]

বর্তমানে মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ বা বি.টেক, এমবিবিএস, ডিপ্লোমা, নার্সিং, এম.ফিল, পিএইচডি ইত্যাদি কোর্সে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের স্বামী বিবেকানন্দ বৃত্তি ২০২০ প্রদান করা হবে।

এক নজরে স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ

Scholarship NameSwami Vivekananda Merit cum Means Scholarship (SVMCM)
Providing AuthorityWest Bengal Higher Education Departmenttment (WBHED)
Eligible CoursesHS, UG Honours, PG, Medical, Engineering, Nursing, Paramedical, Diploma, PG.
Application MethodOnline
Application Start (Fresh/Renewal)11th September 2020
Application Last Date15th November 2020 (for Fresh), July 2021 (for Renewal)
Official Websitesvmcm.wbhed.gov.in

SVMCM Bikash Bhavan Scholarship Eligibility

স্বামী বিবেকানন্দ মেধা সহ অর্থ বৃত্তি ২০২০ এর সম্পূর্ণ যোগ্যতার নির্দেশিকা নীচে দেওয়া হয়েছে। এখানে উল্লেখ করা হয়েছে এইচএস, ডিপ্লোমা, ইউজি, পিজি স্তরের শিক্ষার্থীদের জন্য নির্দিষ্ট যোগ্যতা।

(১) উচ্চমাধ্যমিক ছাত্রছাত্রীদের জন্য-

যারা সম্প্রতি মাধ্যমিক পরীক্ষাতে উত্তীর্ণ হয়ে একাদশ শ্রেণী তথা উচ্চমাধ্যমিক স্তরে (১০+২) বিজ্ঞান/কলা/বানিজ্য বিভাগে ভর্তি হবে/হয়েছে, নূন্যতম ৭৫% নম্বর সহকারে, কেবলমাত্র তারাই এই বৃত্তির জন্য আবেদন করতে পারবে।

(২) স্নাতক স্তরের ছাত্রছাত্রীদের জন্য-

যারা উচ্চমাধ্যমিক স্তরে নূন্যতম ৭৫% নম্বর সহকারে উত্তীর্ণ হয়ে স্নাতক স্তরের প্রথম বর্ষে/সেমিস্টারে সংশ্লিষ্ট বিভাগে (Engineering/ Medical/ General Education/ GNM Nursing/ Para Medical Diploma Course) ভর্তি হয়েছে। তারা এই স্কলারশিপের জন্য আবেদন করতে পারবে।

পশ্চিমবঙ্গ সরকার, পলিটেকনিক কলেজসমূহের প্রাসঙ্গিক বিভাগে ডিপ্লোমা কোর্স পাস করার পরে (ন্যূনতম ৭৫% সহ) পাশ্ববর্তী প্রবেশের ভিত্তিতে ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের স্নাতক কোর্সের ২য় বর্ষে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরাও এর যোগ্যতা অর্জন করবে প্রয়োগ করা

(৩) ডিপ্লোমা ছাত্রছাত্রীদের জন্য-

যে শিক্ষার্থীরা মধ্যমিক পরীক্ষায় পাস হওয়ার পরে ভোকলেট পরীক্ষায় পাস করার পরে প্রথম বর্ষ ডিপ্লোমা (পলিটেকনিক) কোর্সে ভর্তি হয়েছে এবং পার্শ্বীয় প্রবেশের ভিত্তিতে ২ য় বর্ষের ডিপ্লোমা (পলিটেকনিক) কোর্সে ভর্তি হতে পারবে তারা যোগ্য হিসাবে বিবেচিত হবে। বৃত্তি প্রয়োগের জন্য প্রার্থীদের যোগ্যতা পরীক্ষায় কমপক্ষে ৭৫% নম্বর অর্জন করতে হবে।

(৪) স্নাতকত্তরের ছাত্র ছাত্রীদের জন্য-

প্রার্থীদের স্নাতক পর্যায়ে অনার্স বিষয়ে কমপক্ষে ৫৩% নম্বর অর্জন করে বা স্নাতক স্তরের ইঞ্জিনিয়ারিং শিক্ষার্থীর জন্য ৫৫% নম্বর অর্জন করে, সাধারণ শিক্ষা (General Education) / ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে স্নাতকোত্তর কোর্সের প্রথম বর্ষে ভর্তি হবে, তারাই এই বৃত্তির জন্য যোগ্য।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, কন্যাশ্রী যারা পাচ্ছেন (K2) তারা যদি রেগুলারে মাস্টার ডিগ্রিতে প্রেন পশ্চিমবঙ্গের যে কোনো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে তাহলে তারা এই স্কলারশিপ পাওয়ার জন্য আবেদন করএ পারবে। এক্ষেত্রে ওই সকল ছাত্রীদের স্নাতক স্তরে অন্ততপক্ষে ৪৫% নম্বর পেয়ে থাকতে হবে। এবং ছাত্রীদের কোনোরকম ইনকাম সার্টিফিকেট প্রদান করতে হবেনা।

[বিঃ দ্রঃ- ড্রপআউট ছাত্রছাত্রীদের জানাতে হবে উপযুক্ত কারণ ও তথ্য প্রমান সহকারে যে, তারা কেন এর আগে স্কলারশিপের জন্য আবেদন করেনি]

বাৎসরিক পারিবারিক আয়-

SVMCM Bikash Bhavan scholarship 2020-তে আবেদন করার জন্য আবেদনকারীর পারিবারিক বাৎসরিক আয় সর্বোমোট ২,৫০,০০০-এর মধ্যে থাকতে হবে।

Swami Vivekananda Scholarship কত টাকা করে পাওয়া যাবে-

প্রতিটি কোর্সের জন্য স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ পরিমাণ জানুন। এই স্কলারশিপে আবেদনের পরে, যোগ্য শিক্ষার্থীরা তাদের স্কলারশিপের এই পরিমান স্কলারশিপ তাদের সংশ্লিষ্ট ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে পাবে।

CourseAmount per Month
উচ্চমাধ্যমিক (XI & XII)Rs. 1000
স্নাতক স্তর (Arts & Commerce)Rs. ১০০০
স্নাতক স্তর (Science & Professional Courses)Rs. ১৫০০
স্নাতকত্তর (Arts & Commerce)Rs. ২০০০
স্নাতকত্তর (Science & Professional Courses)Rs. ২৫০০
স্নাতক স্তর (Engineering / Medical/ Honours)Rs. ৫০০০
Diploma (Polytechnic / GNM / Para-medical)Rs. ১৫০০
নন্‌ নেট পি.এইচ.ডি/নন্‌ নেট এম.ফিল/নেট এল.এস পি.এইচ.ডিযথাক্রমে ৫০০০ থেকে ৮০০০

গুরুত্বপূর্ণ তারিখ

পশ্চিমবঙ্গ সরকারের স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপের অনলাইন আবেদনের জন্য বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ তারিখ এখানে দেওয়া হলো।

২০২০ সালের জন্য নতুন ও Renewal আবেদন১১th সেপ্টেম্বর ২০২০ থেকে
অনলাইন আবেদনর শেষ তারিখ১৫th নভেম্বর ২০২০

[বিঃ দ্রঃ- করোনা ভাইরাস  ও লক ডাউনের জন্য তারিখ পরিবর্তন করা হতে পারে, এক্ষেত্রে অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ফলো করে রাখুন- https://svmcm.wbhed.gov.in/]

স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ আবেদন প্রক্রিয়া-

স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ আবেদন প্রক্রিয়াটি সম্পূর্ণ অনলাইন মাধ্যমে করতে হবে। অনলাইনে আবেদনের সমস্ত প্রক্রিয়াটি নিচে ধাপে ধাপে দেওয়া হল-

[SVMCM Bikash Bhavan Scholarship 2020 / স্বামী বিবেকানন্দ স্কলারশিপ ২০২০ আবেদন করার শেষ তারিখ ১৫ নভেম্বর ২০২০ (লকডাউন এর জন্য তারিখ বাড়ানো হতে পারে)]

Step-1

Swami Vivekananda Merit cum Means (SVMCM) Scholarship 2020 অনলাইনে আবেদন করার জন্য সবার প্রথমে অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে। https://svmcm.wbhed.gov.in এই লিঙ্কে ক্লিক করে প্রবেশ করুণ। এই ওয়েবসাইটে আসার পর Register Here’ অপশনে ক্লিক করতে হবে।

Step-2

Register Here’ লিংকে ক্লিক করার পর, স্কলারশিপ সংক্রান্ত খুব গুরুত্বপূর্ণ কিছু তথ্য সহকারে পরের পেজে খুলে যাবে। তথ্য গুলি একবার সম্ভব হলে ভালো করে পড়ে নিতে পারেন, তার পর পেজের নিচের দিকে Tick Box-এ টিক দিয়ে Proceed for Registration‘ বটনে ক্লিক করতে হবে। নিচের ছবিটি দেখুন।

Step-3

এরপরের ধাপে রেজিস্ট্রেশন ক্যাটেগরি পেজটি খুলে যাবে (নিচের ছবির মত) এখান থেকে আপনি আপনার কোর্স অনুযায়ী সঠিক Directorate বেছে নিয়ে, ‘Apply for Fresh Application‘ বোতামে ক্লিক করতে হবে।

কোর্সের নামDirectorate
উচ্চমাধ্যমিক (XI & XII)Directorate of School Education (DSE)
UG & PG (অনার্স)Directorate of Public Instruction (DPI)
সমস্ত রকম মেডিকেল কোর্সDirectorate of Medical Education (DME)
পলিটেকনিকDirectorate of Technical Education & Training (DTE&T)
ইঞ্জিনিয়ারিংDirectorate of Technical Education (DTE)

Step-4

এরপর আপনার সর্বশেষ যোগ্যতামান, বেশ কিছু প্রাথমিক তথ্য (যেমন- নাম, জাতি, মোবাইল নং, ইমেল ইত্যাদি) দিয়ে স্কলারশিপের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। এই সময় আবেদনকারীকে একটি পাসওয়ার্ড তৈরি করতে হবে (যা পরবর্তীকালে লগইন করার সময় কাজে লাগবে)। এর পর ‘Register’ বোতামে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপে চলে যান।

[এক্ষেত্রে কন্যাশ্রী দের কন্যাশ্রীর সমস্ত তথ্য উল্লেখ করে ফর্ম টি ফিলাপ করতে হবে একই ভাবে]

Step-5

Register’ বোতামে ক্লিক করার পর, একটি পপ আপ মেনু খুলে যাবে; যেখানে আপনাকে OTP চাইবে। OTP টি আপনার প্রদানকৃত ম্বাইল নম্বরে পাঠানো হয়েছে, সেটি এখানে লিখুন এবং ‘Verify’ বোতামে ক্লিক করার পর। আবেদনকারী একটি Application ID’ পাবে। যার সাহায্যে সে অনলাইন লগইন করতে পারবে। এই Application ID টি লিখে রাখতে হবে, পরবর্তী ক্ষেত্রে ব্যবহারের জন্য। এবং ‘Download Registration Slip’ অপশন থেকে স্লিপ টি ডাউনলোড করে রেখে দিন। নিচের ছবিই লক্ষ করুণ।

Step-6

এরপর আবেদনকারীকে Application ID এবং Password দিয়ে লগইন করতে হবে। নিচের ছবিটি দেখুন।

Step-7

সঠিক ভাবে লগ ইন করার পর। আপনার সামনে আপনার নিজের Dashboard-টি খুলে যাবে। এখান থেকে Edit Profile/Application‘ করুণ এবং পরের ধাপে চলে যান।

Step-8

এখন অনলাইন আবেদন ফর্মটি সঠিকভাবে সমস্ত তথ্য দিয়ে পূরণ করতে হবে এবং আবেদনকারীর স্ক্যান করা ছবি ও সই ওয়েবসাইটে আপলোড করতে হবে। এরপর Save & Next‘ বটনে ক্লিক করে পরবর্তী অংশে যেতে হবে।

Step-9

এর পর আপনার সম্পর্কে এবং আপনার বাবা-মা এর নাম ও ঠিকানা সহকারে সকল তথ্যগুলি পূরণ করতে হবে এবং আপনার ব্যাঙ্কের সকল তথ্য পুরণ করতে হবে। নিচের চিত্রের মত ফর্মটি।

বিঃ দ্রঃ- কন্যাশ্রী রা নিজেদের ব্যাংকের তথ্য পরিবর্তন করতে চাইলে করতে পারবে। সেক্ষেত্রে তাদের উপযুক্ত কারন দেখাতে হবে। নিচের চিত্রে বিস্তারিত রয়েছে।

Step-10

এই ধাপে আবেদনকারীকে বেশ কিছু ডকুমেন্ট স্ক্যান করে আপলোড করতে হবে। এই ডকুমেন্ট গুলি হলো –

  • শেষ পরীক্ষার মার্কশিট এর উভয় দিক
  • মাধ্যমিকের অ্যাডমিট কার্ড
  • শেষ পরীক্ষার অ্যাডমিট কার্ড
  • ইনকাম সার্টিফিকেট
  • ইনকাম সার্টিফিকেট এফিডেভিট
  • আধার/রেশন/ভোটার কার্ড
  • ব্যাংকের পাশ বই-এর প্রথম পাতা।

এই সমস্ত ডকুমেন্ট PDF ফরম্যাটে আপলোড করে ‘Submit Application‘ অপশনে ক্লিক করতে হবে।

Step-11

সমস্ত তথ্য আপলোড করার পর আপনার সামনে ‘Download Application’ অপশন আসবে, এখান থেকে আপনি ডাউনলোড করে নিতে পারেন। এবং অবশেষে ‘Submit Application’ বোতামে ক্লিক করুণ।

Step-12

এই স্কলারশিপের সম্পূর্ণ আবেদন পদ্ধতি অনলাইনে। তাই অনলাইনে আবেদন করার পর কোন ডকুমেন্ট কোথাও জমা দিতে হবে না। পশ্চিমবঙ্গ স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপের অনলাইন আবেদন পদ্ধতি শেষ। এখন আবেদনকারী ড্যাশবোর্ডে নিজের আবেদনের স্ট্যাটাস দেখতে পারবে।

SVMCM স্কলারশিপের হেল্পলাইন

Support mail id: [email protected]

Toll free help line no: 1800 102 8014 (10 AM to 6 PM except Sundays)

স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপের Renewal আবেদন

স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপের Renewal আবেদন এর জন্য ছাত্র-ছাত্রীদের Application ID ও Password (গত বছর অনলাইন আবেদনের সময় প্রাপ্ত) দিয়ে www.svmcm.wbhed.gov.in ওয়েবসাইটে লগইন করতে হবে। এরপর উপরে উল্লেখিত ধাপগুলি অনুযায়ী Renewal আবেদন করতে হবে।

মনে রাখবে, ছাত্র-ছাত্রীরা উচ্চমাধ্যমিক কোর্সে (Class XI), গ্রাজুয়েশনের প্রথম বছরে অথবা পলিটেকনিকের প্রথম বছরে 60% নাম্বার পেয়েছে তারা এই স্কলারশিপ Renewal করার যোগ্য। পোস্টগ্রাজুয়েট (PG) কোর্সের জন্য সর্বনিম্ন 50% নাম্বার প্রথম বছর পেতে হবে, তবেই পরের বছরের জন্য Renewal আবেদন করা যাবে।

SVMCM স্কলারশিপের অনলাইন Renewal আবেদনের সময় আবেদনকারীকে শেষ স্কুল/কলেজ/ইউনিভার্সিটি পরীক্ষার মার্কশিট স্ক্যান করে আপলোড করতে হবে। যদি সেমিস্টার সিস্টেমে পরীক্ষা হয় তাহলে দুটি সেমিস্টারের মার্কশিট একসাথে স্ক্যান করে আবেদন করতে হবে। যেমন, (1st সেমিস্টার + 2nd সেমিস্টার) মার্কশিট দ্বিতীয় বর্ষে Renewal আবেদনের জন্য।

এই স্কলারশিপ সংক্রান্ত আরও যদি কোন প্রশ্ন তোমাদের মনে থাকে তাহলে তা তোমরা আমাদের ওয়েবসাইটের কমেন্ট বক্সে জিজ্ঞাসা করতে পারো। আমরা তোমাদের যথারীতি সাহায্য করার চেষ্টা করব।

Students Care

স্টুডেন্টস কেয়ারে সকলকে স্বাগতম! বাংলা ভাষায় জ্ঞান চর্চার সমস্ত খবরা-খবরের একটি অনলাইন পোর্টাল "স্টুডেন্ট কেয়ার"। পশ্চিমবঙ্গের সকল বিদ্যালয়, মহাবিদ্যালয় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীদের এবং সমস্ত চাকুরী প্রার্থীদের জন্য, এছাড়াও সকল জ্ঞান পিপাসু জ্ঞানী-গুণী ব্যক্তিবর্গদের সুবিধার্থে আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা। 

2 thoughts on “স্বামী বিবেকানন্দ মেরিট-কাম মিনস্ স্কলারশিপ ২০২০ আবেদন প্রক্রিয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: স্টুডেন্টস কেয়ার কতৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত !!