কর্কটসংক্রান্তি বা উত্তর অয়নান্ত দিবস বা গ্রীষ্ম সৌরস্থিতি দিবস

এখান থেকে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  

কর্কটসংক্রান্তি

জুন সৌরস্থিতি দিবস বা জুন অয়নান্ত দিবস বা কর্কটসংক্রান্তি দিবস; যাকে আমরা উত্তর গোলার্ধ গ্রীষ্ম সৌরস্থিতি দিবস বা গ্রীষ্ম অয়নান্ত দিবস এবং দক্ষিণ গোলার্ধে শীতল অয়নান্ত দিবস হিসাবে জানি।


⇒ অয়নান্ত দিবস কাকে বলে?


অয়ন শব্দের অর্থ ‘পথ’; অয়নান্ত দিবস বলতে বোঝায় পথ বা গমনের শেষ দিন (ল্যাটিন শব্দ solstitium এর অর্থ সূর্যের স্থির অবস্থায় দাঁড়িয়ে থাকা) । গমণের পথ অনুসারে দুই ধরণের অয়নান্ত দিবস লক্ষ করা যায়। যথা-

১) উত্তর অয়নান্ত দিবস বা উত্তরায়ণ –

উত্তরায়ণ হল দক্ষিণ অয়নান্ত (২০/২২ ডিসেম্বর) থেকে উত্তর অয়নান্ত (২০/২২ জুন) পর্যন্ত সময়কাল। সূর্যের উত্তরায়ণকালে মহাবিষুবের পর কর্কটক্রান্তি রেখায় (২৩.৫° উত্তর অক্ষাংশ) সূর্যের আগমণ তথা অবস্থানকে উত্তর অয়নান্ত বলা হয়। গ্রেগরিয়ান বর্ষপঞ্জি অনুসারে প্রতি বছর জুন মাসের ২০ হতে ২২ তারিখের মধ্যে এটি সংঘটিত হয় বলে একে জুন অয়নান্তও বলা হয়। এই দিন থেকে সূর্যের উত্তরায়ণের শেষ এবং দক্ষিণায়নের শুরু। একে আমরা গ্রীষ্ম অয়নান্ত দিবস হিসাবে চিনি।

কর্কটসংক্রান্তি

২) দক্ষিণ অয়নান্ত দিবস বা দক্ষিণায়্ন –

দক্ষিণায়্ন হল উত্তর অয়নান্ত (২০/২২ জুন) থেকে ্দক্ষিণ অয়নান্ত (২০/২২ ্ডিসেম্বর) পর্যন্ত সময়কাল। সূর্যের দক্ষিণায়ণকালে জলবিষুবের পর মকরক্রান্তি রেখায় (২৩.৫° দক্ষিণ অক্ষাংশ) সূর্যের আগমণ তথা অবস্থানকে দক্ষিণ অয়নান্ত বলা হয়। গ্রেগরিয়ান বর্ষপঞ্জি অনুসারে প্রতি বছর ্ডিসেম্বর মাসের ২০ হতে ২২ তারিখের মধ্যে এটি সংঘটিত হয় বলে একে ডিসেম্বর অয়নান্তও বলা হয়। এই দিন থেকে সূর্যের দক্ষিণায়ণের শেষ এবং উত্তরায়নের শুরু। একে শীত অয়নান্ত দিবস বলা হয়।


⇒ গ্রীষ্ম সৌরস্থিতি দিবস কবে পালিত হয়?


উত্তর গোলার্ধে প্রতি বছর ২০ থেকে ২২ জুনের মধ্যে এই দিনটি পালন করা হয়ে থাকে। দিনটিতে কর্কটক্রান্তি রেখার ওপর সূর্য লম্ব ভাবে (৯০ ডিগ্রি কোণে) কিরণ দেয়। দিনটি বছরের মধ্যে দীর্ঘতম দিন এবং ক্ষুদ্রতম রাত্রি হিসাবে পরিচিত। এই দিনে সরকারি ভাবে বসন্ত ঋতুর সমাপ্ত ঘটে এবং শুরু হয় গ্রীষ্ম ঋতুর। এই দিনটির পরের দিন গুলির দৈর্ঘ্য ক্রমশ কমতে থাকে।


⇒ কর্কটসংক্রান্তি কী?


21st June সূর্য সাধারণত সরাসরি রশ্মি দেয় 23  °N এর উপর। এই 23 ° রেখার উত্তর বা দক্ষিণে কখনও সরাসরি পড়তে পারে না। কারণ পৃথিবী তার নিজের অক্ষের সাথে 23 ° কোনেই হেলে থাকে। বার্ষিক গতির ফলে কখনও 23 °S পড়ে আবার কখনও 0° আবার কখনও 23 °S এর উপর। 21st June এ সরাসরি সূর্যরশ্মি পতিত হয় 23 °N এর উপর। ওই সময় উত্তর গোলার্ধে হয় গ্রীষ্মকাল ও দিনের দৈর্ঘ্য হয় প্রায় 14 ঘণ্টা। রাত্রির দৈর্ঘ্য 10 ঘণ্টা হয়। এরপর ধীরে ধীরে সূর্যের আবার দক্ষিণায়ণ হয়। অর্থাৎ সূর্যরশ্মি নীচের দিকে আসতে শুরু হয়।


⇒ অয়নান্ত দিবসের সময় ও তারিখ-


আমরা সাধারনত কর্কটসংক্রান্তি বা জুন অয়নাত দিবস বা গ্রীষ্ম সৌরস্থিতি দিবস বলতে ২১ শে জুন তারিখটিকেই জানি। কিন্তু আসলে এই দিনটি বছরের কোনো একটি নির্দিষ্ট দিনে ঘটেনা। একটি নির্দিষ্ট অঞ্চলে বিভিন্ন বছরে বিভিন্ন তারিখে বা সময়ে ঘটে থাকে পারে। গ্রেগরিয়ান পঞ্জিকা অনুসারে কোন নির্দিষ্ট দিনে না হয়ে প্রতি বছর জুন মাসের ২০ হতে ২২ তারিখের মধ্যে যে কোন দিনে উত্তর অয়নান্ত সংঘটিত হতে পারে। যেমন ২০০৩ সালে ভারতে কর্কটসংক্রান্তির তারিখ ও সময় ছিল যথাক্রমে ২২ জুন, রবিবার, ১২:৪০ a.m।


নিম্নে ভারতে সংঘটিত হতে চলা আগামি পাঁচ বছরের কর্কটসংক্রান্তির তারিখ তুলে ধরা হল।

বছরমাস ও দিনসময়
২০২০২১ জুন, রবিবার৩:১৪ a.m
২০২১২১ জুন, সোমবার৯:০২ a.m
২০২২২১ জুন, মঙ্গলবার২:৪৪ p.m
২০২৩২১ জুন, বুধবার৮:২৮ p.m
২০২৪২১ জুন, শুক্রবার২:২০ a.m

⇒ ২০২০ সালে ভারতে জুন সৌরস্থিতি দিবস বা কর্কটসংক্রান্তির দিন ও সময়-


২০২০ সালে ভারতে কর্কটসংক্রান্তির তালিখ, দিন ও সময় সথাক্রমে ২১ জুন, রবিবার ভোর ৩ টা বেজে ১৪ মিনিটে। এই দিনে ভারতের দিনের দৈর্ঘ ১৩ ঘন্টা ৫৮ মিনিট। এবং রাতের দৈর্ঘ ১০ ঘন্টা ০২ মিনিট। অর্থাৎ, এই দিনটি বছরের দীর্ঘতম দিন এবং ক্ষুদ্রতম রাত্রি। ভারতে এই সময় গ্রীষ্ম ঋতু বিরাজমান।


⇒ ২০২০ সালের জুন সৌরস্থিতি দিবসটি অন্যান্য বছরের তুলনায় বিরল কেন?


২০২০ সালের কর্কটসংক্রান্তি বা জুন অয়নাত দিবস বা গ্রীষ্ম অয়নাত দিবসটি অন্যান্য বছরের তুলনায় বিরল, কারন এবছর এই দিনে (২১ জুন, রবিবার) বলয়াকার সূর্যগ্রহণ হতে দেখা গিয়েছে। একই দিনে জুন অয়নান্ত দিবস এবং সাথে সাথে বলয়াকার সূর্যগ্রহণ সংঘটিত হওয়াটা খুবই বিরল ঘটনা।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এরূপ ঘটনা এই শতকে মাত্র দুই বার দেখা যাবে। প্রথমটি হল ২১ জুন ২০২০ সালে। এবং এর পরেরটি দেখা যাবে ২১ জুন ২০৩৯ সালে।


⇒ জুন সৌরস্থিতি দিবস বা কর্কটক্রান্তি দিবসের কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য-


১. দিনটি সূর্যের উত্তরাগমনের শেষ দিন। এই দিনে সূর্য উত্তরের ২৩.৫ ডিগ্রি পর্যন্ত গমন করে থেকে যায়। এর পরের দিন থেকে সূর্যের দক্ষিণাগম্ন শুরু হয়। তাই একে সংক্রান্তি বা কর্কটসংক্রান্তি নামে ডাকা হয়ে থাকে।

২. উত্তর গোলার্ধে দিনটির দৈর্ঘ্য সবচেয়ে বেশি। প্রায় ১৪ ঘন্টা দির্ঘ দিন লক্ষ করা যায়।

৩. এই দিনে উত্তর গোলার্ধে গ্রীষ্ম ঋতু এবং দক্ষিন গোলার্ধে শীত ঋতু বিরাজমান।

৪. জ্যোতির্বিদদের মতানুসারে এই দিন থেকে উত্তরগোলার্ধে গ্রীষ্ম ঋতুর সূচনা হয় এবং দক্ষিন গোলার্ধে শীত ঋতুর সূচনা হয়ে থাকে।

৫. প্রতি বছর দুইটি অয়নান্ত দিবস সংঘটিত হয়। বছরের প্রথম অয়নান্ত দিবস হল জুন সৌরস্থিতি দিবস বা কর্কট সংক্রান্তি এবং অপর একটি হল ডিসেম্বর সৌরস্থিতি দিবস বা মকরসংক্রান্তি।

৬. এই দিনটিতে সূর্য কর্কটক্রান্তি রেখার ওপর এসে থেকে যায়। ইংরেজি শব্দ ‘Solstice বা সৌরস্থিতি’ শব্দটির উৎপত্তি ল্যাটিন শব্দ ‘solstitium’ বা ‘সূর্যের স্থির অবস্থায় দাঁড়িয়ে থাকা’ থেকে।

৭. জুন সৌরস্থিতি দিবস প্রতি বছর একটি নির্দিষ্ট দিনে হয়না। বরং বিভিন্ন বছরের ২০ জুন থেকে ২২ জুনের মধ্যে কোনো একটি দিনে সংঘটিত হয়ে থাকে।

৮. অনেকে মনে করেন যেহেতু এই দিনে দিনের দৈর্ঘ্য সবচেয়ে বেশি তাই এই দিনটি বছরের মধ্যে উষ্ণতম দিন। কিন্তু বাস্তবে বছরের উষ্ণতম দিবস গুলি সাধারণত জুলাই মাসে লক্ষ করা যায়। এরূপ ঘটনা ঘটে, স্থলভাগ ও জলভাগের তাপ গ্রহণ ও পরিহার করার ক্ষমতা আলাদা আলাদা হওয়ার জন্য।

৯. এই সময় উত্তর মেরুতে ২৪ ঘন্টা সূর্যের অবস্থান লক্ষ করা যায় এবং দক্ষিণ গোলার্ধে ২৪ ঘন্টা সূর্যই দেখা যায় না!

১০. বিশ্বজুড়ে মানুষ দিনটি খাওয়া-দাওয়া, পিকনিক, নাচ এবং সংগীতের মাধ্যমে উদযাপন করে।


উপস্থাপনায়- রাজকুমার গুড়িয়া

Geography & Environment (Facebook Group)


আপনিও লেখা পাঠান নিম্নলিখিত ইমেলে

[email protected]


Students Care

স্টুডেন্টস কেয়ারে সকলকে স্বাগতম! বাংলা ভাষায় জ্ঞান চর্চার সমস্ত খবরা-খবরের একটি অনলাইন পোর্টাল "স্টুডেন্ট কেয়ার"। পশ্চিমবঙ্গের সকল বিদ্যালয়, মহাবিদ্যালয় ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীদের এবং সমস্ত চাকুরী প্রার্থীদের জন্য, এছাড়াও সকল জ্ঞান পিপাসু জ্ঞানী-গুণী ব্যক্তিবর্গদের সুবিধার্থে আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা। 

One thought on “কর্কটসংক্রান্তি বা উত্তর অয়নান্ত দিবস বা গ্রীষ্ম সৌরস্থিতি দিবস

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

error: স্টুডেন্টস কেয়ার কতৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত !!